• স্টাইল ক্রেইজ (style craze) ফ্যাশন হাউজে নতুন ঈদ কালেকশন
  • ২০২০ সাল পর্যন্ত কর অব্যাহতি পাচ্ছে গ্রামীণ ব্যাংক
  • বিশেষ তহবিলে বিনিয়োগের সীমা বেঁধে দিল বাংলাদেশ ব্যাংক
  • ব্যাংকিং সেক্টরেও আছে দুষ্টু চক্র : এনবিআর চেয়ারম্যান
  • ৫ দিনব্যাপী ব্যাংকিং মেলা শুরু
  • এসএমই ঋণে সুদ হারের ব্যবধান সিঙ্গেলে রাখার নির্দেশ
  • বাংলাদেশ ব্যাংককে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের চিঠি:
  • বাংলা একাডেমিতে বসছে ব্যাংকিং মেলা
  • দুদক বেসিক ব্যাংকের নথিপত্র সংগ্রহে আদালতে যাবে
  • স্কুল ব্যাংকিংয়ে লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণের নির্দেশ

প্রকৃত কৃষক যেন দুগ্ধ উৎপাদনের ঋণ পায়

dratiur11
ব্যাংক নিউজ ২৪ ডট কমঃ দুগ্ধ উৎপাদন ও কৃত্রিম প্রজনন খাতে পুনঃঅর্থায়ন স্কিমের টাকা যেন প্রকৃত কৃষক পায় সে অনুযায়ী যথাযথ পদক্ষেপ নিতে ব্যাংকগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ড. আতিউর রহমান। এদের মধ্যে নারীরা যেন অগ্রধিকার পায় তাও দেখার অনুরোধ করেন তিনি।

মঙ্গলবার বিকালে কেন্দ্রীয় ব্যাংকে ২০০ কোটি টাকার পুনঃঅর্থায়ন তহবিল থেকে ঋণ সুবিধা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে সম্মতিপত্র স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে গভর্নর এসব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত বিভিন্ন ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীদের উদ্দেশ্যে আতিউর রহমান বলেন, “আপনারা যখন টাকাটা দেবেন তখন খেয়াল রাখবেন, যেন সত্যিকার কৃষক বিশেষ করে নারীরা টাকাটা পায়। আপনারা চেষ্টা করবেন তাদের সঙ্গে দুগ্ধ বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর একটা যোগাযোগ তৈরি করে দেয়ার। কারণ তারা যদি দুধের ন্যায্য মূল্য না পায় তাহলে এ প্রকল্পে কোন ফল আসবে না।”

৫ শতাংশ সুদে সরাসরি কৃষকরা গাভী কেনায় ঋণ পাবে উল্লেখ করে গভর্নর বলেন, ব্যাংকগুলো সবসময় রিফাইন্যান্স স্কিমের টাকা ৯-১০ শতাংশ সুদের কমে দিতে পারে না। এটা বিশেষ ব্যবস্থায় ৫ শতাংশ করা হয়েছে। উদ্দেশ্যে একটাই; আমাদের যে দুগ্ধ উৎপাদন ব্যবস্থা রয়েছে তাতে মাত্র ২০ শতাংশ চাহিদা পূরণ হয়। বাকি ৮০ শতাংশ আমদানি করে মেটাতে হয়। এই আমদানি যেন না করতে হয় সেজন্যই এই স্কিমের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এটিকে সৃজনশীল প্রকল্প উল্লেখ করে গভর্নর বলেন, ২০০ কোটি দিয়ে এটি শুরু হলেও ভালোভাবে এটির ইমপ্লিমেন্টেশন ঘটাতে পারলে টাকার পরিমাণ আরও কয়েকগুন বেড়ে যাবে। এটি এমন একটি প্রক্রিয়া যা সাসটেইনেবল ফাইন্যান্সের একটি অংশ। অর্থাৎ সত্যিকর অর্থে উৎপাদনশীল খাতেই এটা ব্যবহার হচ্ছে।

ডেপুটি গভর্নর এস কে সুর চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন কৃষিঋণ বিভাগের মহাব্যবস্থাপক প্রভাষ চন্দ্র মল্লিক। ২০০ কোটি টাকার এ পুন:অর্থায়ন তহবিলের আওতায় চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন ১৩টি ব্যাংক ও একটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান। এসময় ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহীরা উপস্থিত ছিলেন।

বিভাগ - : ব্যাংক

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন